আজকের ইফতারিতে সহজেই তৈরি করতে পারেন এই ৪ পদ!!

Loading...

বাঙালি ভোজনরসিক। ইফতারিতে মজার মজার খাবার সবার পছন্দ। সেই ইফতারিতে যদি আমিষ খাবারের পাশাপাশি মিষ্টিজাতীয় ও পানীয় খাবার থাকে তাহলে রুচি অনেক বেড়ে যায়। ৪ পদের রেসিপি নিয়ে আমাদের এবারের বিশেষ আয়োজন। রেসিপিগুলো দিয়েছেন সৃষ্টি’স ফুড ক্রিয়েশনস-এর স্বত্বাধিকারী তাসনিয়া রহমান সৃষ্টি।
কুলফির স্বাদে ম্যাঙ্গো লাচ্ছি
উপকরণ: কিউব করে কাটা আম আধা কাপ, টকদই ১ কাপ, কুলফি আইসক্রিম ২ স্কুপ, লেবুর রস ১ টেবিল চামচ, বিট লবণ আধা চা চামচ, চেরি সাজানোর জন্য, চিনি স্বাদমতো, পানি ও বরফ কুচি পরিমাণমতো।
প্রণালী: চেরি ছাড়া বাকি সমস্ত উপকরণ ব্লেন্ডারে ব্লেন্ড করে নিতে হবে। এবার আম কুচি ও চেরি দিয়ে সাজিয়ে ঠাণ্ডা ঠাণ্ডা পরিবেশন করতে হবে।
বিফ শাসলিক
উপকরণ: গরুর মাংস (হাড় ছাড়া) আধা কেজি, টক দই ২ টেবিল চামচ, আদা বাটা ১ চা চামচ, রসুন বাটা ১ চা চামচ, ওয়েস্টার সস ১ চা চামচ, জিরা গুঁড়া ১ চা চামচ, গরম মসলা গুঁড়া ১ চামচ, টমেটো সস ২ টেবিল চামচ, জয়ত্রী গুঁড়া ১ চিমটি, ক্যাপসিকাম ১/৪ কাপ, গাজর ১/৪ কাপ, পেঁয়াজ ১/৪ কাপ, বাটার ৩ টেবিল চামচ, শাসলিক কাঠি পরিমাণমতো ও লবণ স্বাদমতো।
প্রণালি: মাংসের সাথে সবজি ছাড়া বাকি সমস্ত উপকরণ মেখে ১ ঘণ্টা রেখে দিতে হবে। এবার শাসলিক কাঠিতে মাংস, ক্যাপসিকাম, পেঁয়াজ ও গাজর গেঁথে বাটারে দিয়ে ভেজে পছন্দমতো সাজিয়ে পরিবেশন করতে হবে।
শাহী হালিম
উপকরণ: খাসি/গরু/মুরগির মাংস আধা কেজি, গম ভাজা ৩ টেবিল চামচ, পোলাওয়ের চাল ৩ টেবিল চামচ, পাঁচমিশালি ডাল ২ কাপ, আদা বাটা ২ টেবিল চামচ, রসুন বাটা ১ টেবিল চামচ, ১০-১২টা পেঁয়াজ কুচি, কাঁচামরিচ ১০-১২টা, শুকনা মরিচ ৫-৬টা, হলুদ গুঁড়া আধা চা চামচ, ধনে গুঁড়া ১ চা চামচ, জিরা গুঁড়া ১ চা চামচ, এলাচ ৩-৪টা, দারুচিনি ছোট ২-৩ টুকরা, লবঙ্গ ৩-৪টা, গোল মরিচের গুঁড়া ১ চা চামচ, তেজপাতা ২টা, ঘি ১/৪ কাপ, তেল ১/৪ কাপ, বেরেস্তা আধা কাপ, সামান্য জয়ফল ও জয়ত্রীর গুঁড়া, আদা কুচি ১ টেবিল চামচ, লেবু ৩-৪ পিস, তেঁতুলের মাড় ২ টেবিল চামচ, ধনেপাতা কুচি ২ টেবিল চামচ, কাঁচামরিচ কুচি ১ টেবিল চামচ, লবণ স্বাদমতো।
প্রণালী: মাংস, তেল, স্বাদমতো লবণ, সমস্ত গরম ও বাটা মসলা মিশিয়ে হাঁড়িতে বসিয়ে ২০ মিনিট কষিয়ে নিন। এবার তাতে ডাল, চাল ও গম ভাজা দিয়ে নেড়ে বেশি করে পানি দিয়ে ঢেকে দিতে হবে। ফুটে উঠলে জ্বাল কমিয়ে রেখে দিতে হবে যতক্ষণ না সবকিছু সেদ্ধ হয়ে যায়। ঘন ঘন নাড়তে হবে, তা নাহলে ডেকচির তলায় লেগে যেতে পারে। পানি শুকিয়ে যখন ঘন হয়ে আসবে, মাংস ছাড়া ছাড়া হয়ে যাবে, চাল-ডাল-গম সব মিশে যাবে; তখন নামিয়ে নেবেন। যদি বেশি ঘন হয়ে যায় তাহলে আরও একটু গরম পানি ঢেলে আবার কিছুক্ষণ জ্বাল দিন। পরিবেশনের সময় উপরে ঘি, বেরেস্তা, পেঁয়াজ কুচি, ধনে পাতা কুচি, আদা কুচি ও কাঁচামরিচের বাগার দিয়ে লেবু ও তেঁতুলের মাড় সহযোগে পরিবেশন করুন।
চিকেন চিজ রোল
উপকরণ: মুরগির কিমা ১ কাপ, পেঁয়াজ কুচি ২ টেবিল চামচ, আদা বাটা ১ চা চামচ, রসুন বাটা ১ চা চামচ, গোলমরিচ গুঁড়া ১ চা চামচ, সয়াসস ১ চা চামচ, গরম মসলা গুঁড়া ১ চা চামচ, ঢাকাই পনির ১/৪ কাপ, ময়দা ১ কাপ, কর্ন ফ্লাওয়ার ১/৪ কাপ, ডিম ১টি, তেল রোল ভাজার জন্য যতটুকু প্রয়োজন, সস পছন্দমতো ও লবণ স্বাদমতো।
প্রণালি: ময়দা, কর্ন ফ্লাওয়ার ও লবণ একসাথে মিশিয়ে ২ টেবিল চামচ তেল ও পানি দিয়ে ডো তৈরি করে ১৫ মিনিট ঢেকে রেখে দিতে হবে যাতে ডোটা নরম হয়ে যায়। এবার কড়াইতে পেঁয়াজ কুচি ভেজে কিমা ও বাকি উপকরণ দিয়ে মিশিয়ে রান্না করতে হবে। এরপর তা নামিয়ে চিজ মিশিয়ে রোল বানানোর ফিলার তৈরি করে নিতে হবে। এবার ডো দিয়ে ছোট ছোট রুটি বেলে ফিলার দিয়ে রুটির চারপাশে ডিম ব্রাশ করে রোল বানিয়ে ফ্রিজে ১৫ মিনিট রেখে দিতে হবে। এবার রোলগুলো ডুবো তেলে বাদামি করে ভেজে পছন্দমতো সসের সাথে সাজিয়ে পরিবেশন করতে হবে।

নিচের ভিডিওটি মিস করেন নি তো?
লাইক দিয়ে আমাদের সাথে থাকুন