মাহি বললেন- এত পুরুষ চারিদিকে, কই, প্রেমিক তো দেখি না

Loading...

চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহি গত ১৩ সেপ্টেম্বর রাত ১২টা পাঁচ মিনিটে বিয়ে করেছেন বলে ফেসবুকে ঘোষণা দেন। তবে গুঞ্জন ছিলো বিয়ে মাহি আগেই করেছে। ওইদিন শুধু আনুষ্ঠানিক ঘোষণা এসেছে। নতুন স্বামীকে নিয়ে সবাই হানিমুনে গেলেও মাহির ক্ষেত্রে দেখা গেলো ব্যতিক্রম। বিয়ের পর দিনই স্বামী রাকিব সরকারকে নিয়ে গ্রামের বাড়ি রাজশাহীতে যান তিনি।
সেখানে স্বামীর সঙ্গে দুইদিন একান্তে সময় কাটান। এরপর ফেরেন ঢাকায়। বিয়ের চারদিনের মাথাতেই নতুন স্বামীকে সঙ্গে করে নিয়ে শুটিংয়ে অংশ নিয়েছেন এ নায়িকা।

রোববার মাহি নিজের ফেসবুকে একটি কবিতার অংশ তুলে ধরেন। আর এরপরেই নেটাগরিকদের মনে বিভিন্ন প্রশ্ন ঘুরপাক করতে থাকে।

নিজের একটি ছবি দিয়ে লিখেছেন-
যদি আমাকে কাজল পড়তে হয় তোমার জন্য,
চুলে মুখে রং মাখতে হয়,গায়ে সুগন্ধী ছিটোতে হয়,
সবচেয়ে ভালো শাড়িটা যদি পড়তে হয়,

ভিডিওটি দেখুন

শুধু তুমি দেখবে বলে মালাটা চুড়িটা পড়ে সাজতে হয়,
যদি তলপেটের মেদ, যদি গলার বা চোখের কিনারের ভাঁজ কায়দা করে লুকোতে হয়,
তবে তোমার সঙ্গে অন্য কিছু, প্রেম নয় আমার।
প্রেম হলে আমার যা কিছু এলোমেলো,
যা কিছু খুঁত, যা কিছুই ভুলভাল অসুন্দর
থাক, সামনে দাঁড়াবো, তুমি ভালবাসবে।
কে বলেছে প্রেম খুব সহজ, চাইলেই হয়!

এত যে পুরুষ চারিদিকে, কই, প্রেমিক তো দেখি না!

এই কবিতা মাহি কেন পোস্ট করলেন তা নেটিজেন কিংবা ভক্তরা হিসেব মেলানোর চেষ্টা করছেন। নতুন জীবনে কি কোনো খটকার মুখোমুখি হয়েছেন কিংবা বাধা? তাহলে কেন বলছেন, যা কিছু খুঁত, যা কিছুই ভুলভাল অসুন্দর, থাক, সামনে দাঁড়াবো, তুমি ভালবাসবে…। তারপরে শেষ লাইনটিকেও অনেকে টেনেছেন- এত যে পুরুষ চারিদিকে, কই, প্রেমিক তো দেখি না! নেটিজেনদের প্রশ্ন- নতুন স্বামীকে পেলেন, তাহলে কিই প্রেম পাননি?

এসব ঘুরপাক প্রশ্নের মাঝেই এই কবিতাকে জীবনের নিবিড়তম সত্য বলে মাহির সঙ্গে একাত্মতা প্রকাশ করছেন। ‘যদি তলপেটের মেদ, যদি গলার বা চোখের কিনারের ভাঁজ কায়দা করে লুকোতে হয়, তবে তোমার সঙ্গে অন্য কিছু, প্রেম নয় আমার… এই লাইনগুলোও নেটিজেনদের মধ্যে প্রশ্নের উদ্রেক তৈরি করেছে।

নিচের ভিডিওটি মিস করেন নি তো?
লাইক দিয়ে আমাদের সাথে থাকুন