কুয়েতে পরকীয়ার কারণে বাংলাদেশ দূতাবাসের দুই কর্মীকে প্রত্যাহার!

Loading...

পরকীয়ার কারণে কুয়েতস্থ বাংলাদেশ দূতাবাসের পাসপোর্ট ও ভিসা উইংয়ে কর্মরত এক প্রশাসনিক কর্মকর্তা এবং একজন অফিস সহকারীকে প্রত্যাহারের আদেশ জারি করেছে সরকার।

গত ১৮ই ফেব্রুয়ারি পৃথক আদেশ জারি করেন স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সুরক্ষা সেবা বিভাগের সিনিয়র সহকারী সচিব ইকবাল আখতার। কুয়েতের বাংলাদেশ দূতাবাসের সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের প্রশাসনিক কর্মকর্তা কেএনএম জিল্লুর রহমান ও অফিস সহকারী কাম-কম্পিউটার মুদ্রাক্ষরিক মো. ওবায়দুর রহমান কুয়েতের বাংলাদেশ দূতাবাসে কাজ করার সুবাদে দুই পরিবারের মধ্যে বেশ ঘনিষ্ঠতা গড়ে ওঠে।

সেই সুযোগে প্রশাসনিক কর্মকর্তা জিল্লুর রহমানের সঙ্গে ওবায়দুরের স্ত্রীর পরকীয়ার সম্পর্ক তৈরি হয়। বিষয়টি জানাজানি হলে জিল্লুর রহমানের স্ত্রী কুয়েত পুলিশ প্রশাসনে নালিশ জানান।

ভিডিওটি দেখুন

যার ভিত্তিতে কুয়েত প্রশাসন বাংলাদেশ হাইকমিশনে গিয়ে অভিযোগ তদন্ত করে এবং ঘটনার সত্যতা পায়। এরপর কুয়েতের বাংলাদেশ হাইকমিশনকে তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে অনুরোধ জানায় কুয়েত প্রশাসন। যার ভিত্তিতে তাদেরকে প্রত্যাহার করা হয়।

এদিকে পরকীয়ার ঘটনা জানাজানি হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে জিল্লুর ও ওবায়দুর তাদের পরিবারকে ঢাকায় পাঠিয়ে দেন। এখন তাদের দু’জনকে দেশে ফিরতে হচ্ছে। সুত্রঃ মানব জমিন

নিচের ভিডিওটি মিস করেন নি তো?
লাইক দিয়ে আমাদের সাথে থাকুন