হার্ট ভালো রাখতে প্রিয়জনকে জড়িয়ে ধরু’ন, আরও পাবেন যে অবিশ্বাস্য উপকা’রিতা!!

Loading...

প্রিয়জনকে কাছাকাছি পাওয়ার বাসনা সবার মনেই বিদ্যমান। আর ভালোবাসার মানুষকে একটু আধটু জড়িয়ে না ধ’রলে সে ভালোবাসায় জৌলুসতা বাড়ে না! তবে শুধু প্রেম নিবেদনের জন্যই নয় জা’নেন কী এই জড়ানোর পদ্ধতির একটি বৈজ্ঞানিক ব্যাখ্যাও আছে।

আসুন জে’নে নিই কী সেই বৈজ্ঞানিক ব্যাখ্যা-

• প্রিয়জনকে আলতো করে ছুঁতে চাওয়ার ইচ্ছাই আপনাকে আরাম দেবে, রাখবে সুখে।

• আম’রা যখন কখনো কারোকে জড়িয়ে ধ’রি তখন অক্সিটসিন হরমোন নিঃসারণ হয়। এই হরমোন আমাদেরকে মা’নসিকভাবে সুখি অ’নুভব ক’রতে সাহায্য করে। এই হরমোন সামাজিক ব’ন্ধন বাড়াতেও সাহায্য করে।

কেন না নিউরো-পেপটাইড অক্সিটক্সিন হরমোন আমাদের মধ্যে সততা, অনুরাগ বাড়িয়ে তোলে। প্রেমের স’স্পর্ককে মজবুত ক’রতে যা একান্তই প্রয়োজন।

• হাগ করা বা জড়ানো আপনার মনই নয় শ’রীরকেও ভাল রাখতে সাহায্য করে। যখন কেউ আপনাকে জড়ায় তখন ত্বকের মধ্যে থাকা পাসিনিয়ান কর্পাসেলস নামে প্রেসার রিসেপটর মস্তিষ্কে সংকেত পাঠিয়ে র’ক্তচা’প কমিয়ে দেয়। যা হার্টের ভাল থাকার পক্ষে খুবই জ’রুরি।

ভিডিওটি দেখুন

• হার্ট ভাল রাখতে জড়ানোর থেকে ভাল ওষুধ আর কিছু হতে পারে না। প্রিয়জনের ছোট্ট ছোঁয়া প্রতি মিনিটে হার্টের গতিবেগ বাড়িয়ে তোলে অ’ন্তত ১০ বিট।

• প্রিয়জনের জড়ানো আপনাকে মা’নসিকভাবে ভাল রাখে। আপনার আত্মবিশ্বা’স বাড়িয়ে তুলে অকারণে ভ’য় পাওয়া কমিয়ে দেয়। প্রিয় মানুষদের জীবনে আপনার যে গু’রুত্ব পূর্ণ অস্তিত্ব আছে তা বোঝায়।

• মা’র্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ওহিও বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষণায় প্র’কাশ, বয়সের স’ঙ্গে একাকীত্ব বাড়তে থাকে, যা স্ট্রেস বাড়িয়ে তোলে। আপনার একটা ছোট্ট হাগই আপনার প্রিয় মানুষটার একাকীত্ব কমিয়ে দিয়ে আপনাদের স’স্পর্ককে আরো দৃঢ় করে তুলবে।

• যখন আম’রা কাউকে জড়িয়ে ধ’রি তখন স্ট্রেস হরমোন কর্টিসোল নিঃসারিত হয়। এই কর্টিসোল হরমোন আমাদের জীবনে স্ট্রেস এবং মা’নসিক অস্থিরতা বাড়িয়ে তোলে। তাই যত বেশি আম’রা জড়িয়ে ধ’রি তত কমে যায় কর্টিসোলের পরিমান। মা’নসিকভাবে শান্ত থাকতে সাহায্য করে ছোট্ট হাগ।

নিচের ভিডিওটি মিস করেন নি তো?
লাইক দিয়ে আমাদের সাথে থাকুন