‘৩২ নয় ৭০ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রায় করোনাভাইরাস মারা যায়’!

Loading...

করোনাভাইরাস নিয়ে সরকারের দুই সংস্থার দেয়া দু’রকম তথ্য সংশোধন করে বলা হয়েছে ৭০ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রায় করোনাভাইরাসের জীবাণু মারা যায়।
ফাইল ছবি

গতকাল বুধবার সচিবালয়ের আয়োজিত একটি বইয়ের মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানে বেসরকারি বিমান ও পর্যটন প্রতিমন্ত্রী মাহবুব আলী জানান, তাপমাত্রা ৩২ ডিগ্রি সেলসিয়াসের ওপর ওঠলে করোনাভাইরাস আর জীবিত থাকতে পারে না।

তাই মুজিববর্ষে বাংলাদেশে বিদেশি অতিথিদের আগমনে এই ভাইরাস কোনো প্রভাব ফেলবে না।

তবে, স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা ইনস্টিটিউট (আইইসিডিআর) এর পরিচালক জানান, ৩২ ডিগ্রি নয়, ৭০ ডিগ্রি সেলসিয়াসের বেশি তাপমাত্রায় করোনাভাইরাস জীবিত থাকতে পারেনা। ফলে, সরকারের দুই সংস্থার দু’রকম তথ্যে বিভ্রান্ত হওয়ার অভিযোগ ওঠে।

পরে আজ বৃহস্পতিবার (১৩ই ফেব্রুয়ারি) এ বিষয়ে বিভ্রান্তের অবসান ঘটিয়ে সরকারের স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা ইনস্টিটিউট (আইইসিডিআর) এর পরিচালক ডা. মীরজাদী সেব্রিনা ফ্লোরা জানান, ‘২২ বা ৩২ ডিগ্রি নয় ৭০ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রায় করোনাভাইরাসের জীবাণু মারা যায়।’

বাংলাদেশে এখন পর্যন্ত কেউ করোনোভাইরাসে আক্রান্ত হয়নি। এ বিষয়ে কোনো ধরনের গুজবে কান না দেয়ার আহ্বান জানিয়েছেন আইইডিসিআর এর পরিচালক অধ্যাপক ডা. মীরজাদী সেব্রিনা ফ্লোরা।

মহাখালি স্বাস্থ্য অধিদপ্তরে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে সেব্রিনা ফ্লোরা আরও জানান, সিঙ্গাপুরে ইতিমধ্যে দু’জন বাংলাদেশি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। আর ১০ বাংলাদেশি কোয়ারেন্টাইনে রয়েছেন। সিঙ্গাপুরের ব্যবস্থাপনায় তাদের চিকিৎসা হচ্ছে এবং সিঙ্গাপুরই তাদের ব্যয়ভার বহন করছে।’

এছাড়া, বাংলাদেশে এ পর্যন্ত ৬১ জনের নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষা করা হয়েছে। গত ২৪ ঘন্টায় আরও দু’জনের নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষা করা হয়েছে তাদের কারও মধ্যেই করোনাভাইরাসের উপস্থিতি পাওয়া যায়নি।

লাইক দিয়ে আমাদের সাথে থাকুন